বৃহস্পতিবার, ০২ ফেব্রুয়ারী ২০২৩, ০৩:৫৮ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
জন্মদিনে নানা শ্রেণির মানুষের ভালো বাসায় সিক্ত আওয়ামী লীগ নেতা মোঃ রুস্তুম আলী জন্মদিনে শুভেচ্ছায় সিক্ত যুবলীগের নেতা মোঃ আলমগীর হোসেন ঝিনাইদহের কালীগঞ্জে আগুনে পুড়ে বৃদ্ধার মৃত্যু শীতার্ত মানুষের ঘরে ঘরে কম্বল পৌঁছে দিচ্ছেন ঝাল মুড়ি বিক্রেতা মোহাম্মদ জাবেদ ইসলাম পর্ব ৫৮: “যে ইতিহাসটি বলা দরকার” : এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজা বাঙ্গালীর মাতৃভাষা আন্দোলন সংস্কৃতি রক্ষা স্বাধীকার স্বাধীনতা ও বর্তমান উন্নয়ন প্রেক্ষাপট সন্ত্রাসী সংগঠন হুজিবি প্রধানসহ গ্রেফতার ৬; বড় হামলার পরিকল্পনা ছিল, বলছে সিটিটিসি গ্যাসে ভাসছে ভোলা, কঠিন হচ্ছে তোলা কর্ণেল (অব) শওকত আলীর ৮৬তম জন্মবার্ষিকীতে আবু সাঈদ তালুকদারের বিনম্র শ্রদ্ধা মিলেমিশে এ জীবনঃ কবি মোঃ নাসির উদ্দিন দুলাল

মওদুদীর ফেতনা পড়ে দ্বিনে আসলাম।যারা পড়ালেন, তারা কেনো বেদ্বিনের পথে ? মামুনুল হক,বলতে পারেন

রিপোর্টারের নাম:
  • আপডেট টাইম শনিবার, ৫ ডিসেম্বর, ২০২০
  • ১৬৭ দেখা হয়েছে

জনাব রবিউল আলমঃ মাওলানা মোহাম্মদুল্লাহ হাফিজী হুজুরের লেখা মওদুদীর ফেতনা পড়ার পরে, আমার মনে হয়েছে জামাত ইসলামে, ইসলামের কিছুই নাই। আমার আস্তা ও বিশ্বাসের যায়গাটা পরিস্কার করতে পেরেছিলাম। তারই অনুসারী আল্লামা শাইকুল হাদিস আজিজুল হক,চরমুনাই এর পির ফজলুল করিম, মাওলানা আমিনুল ইসলামদের প্রতি ভক্তি রেখেই মামুনুল হকের কাছে কিছু প্রশ্ন রাখতে চাই। একজন মানুষের মতো আর একজন মানুষ হতে পারে ? একজনের চলা, বলা, কথা কি আর একজন মানুষ দেখে, দেখে নকল করতে পারবে ? আমি আপনার সামনে দ্বারিয়ে হাজার বার ঠুট লাড়াবো। আপনি যদি আমাকে নকল করে দেখাতে পারেন, কসম করে বলছি আপনাকেই গুরু মানবো। আপনি আমার দ্বিনের নবিকে নিয়ে ব্যাংগুপ্তি করেছেন। বলেছেন আমার দ্বিনের নবী কিভাবে ঠুট লাড়াতো। না দেখেই বলেছেন, আমিই পারি। সব মানুষ চুপ হয়ে গেলো। আপনি বললেন আলহামদুলিল্লাহ বলেন। অনেকে ভয়ে ভয়ে বললো। আপনিই পারেন, এর চেয়ে অহংকা আর কি হতে পারে। মিথ্যে বলারও একটা শেষ ও সীমা আছে। আপনি এখানেই শেষ করলেন না। আপনি বললেন দেখতে চান না। আপনার কিছু দালাল তাও দেখতে চাইলেন। আপনি নিলজ্জের মতো বোয়াল মাছের মত মুখ করে দেখালেন। নাউজুবিল্লাহ , আল্লা মাফ করুক আপনাকে। আল্লাপাক নিরাকার। আমার দ্বিনের নবী আকার হলেও তার কোনো আকৃতি রাখা হয় নাই এই পৃথিবীতে। কোনো মানুষের সাথে তুলোনা করা যেনো না হয়। আমার নবী করিম সঃ এর চেয়ে সুন্দর কোনো মানুষ হতে পারেনা। কারো সাথে তুলোনা করা যাবে না। আপনি তার ঠুটকে বিকৃতি করে দেখালেন। কিভাবে আপনাকে ঘৃনা করা যায় ? আপনার দাদা হুজুর ও বাবারা আমাদেরকে মওদুদীর ফেতনা পড়ালো। জামাতকে ঘৃনা করতে শিখালো। আপনি সেই জামাতকে বুকে ধারন করেছেন। আপনি ভুল করছেন ? না আপনার বাবারা ভুল করেছে ? বে-নামাজির বাড়ী খাওয়া, নারী নেতৃত্ব হারাম। খালেদা জিয়ার পাশে বসা কি নেতৃত্ব না মেনে গিয়েছিলেন ? ভাস্কর্য পৃথিবী সৃষ্টিলগ্ন থেকেই। কোরআন হাদিস, কিতাবের বাহিরেও একটা জগত আছে। সেই জগতেও মানুষ আছে আল্লাপাকের সৃষ্টি। যদি আপনি সৃষ্টির মালিক আল্লাকে মনে করেন। আমার কোনো সন্দেহ নাই সৃষ্টির মালিক আল্লা। অন্যকোনো মাবুদ নাই, আমি বিশ্বাস করি। তবে সেই জগতের মানুষগুলোকে কি আপনারে নিয়ন্ত্রণ করার হুকুম অথবা হ্মমতা দিয়েছে আল্লাপাক রাব্বুল আলামিন ? একজন ছাত্র সব বিষয় পড়েন না, পড়তে পারেনও না। একজন আলেম সবগুলো হাদিস কোরআন, কিতাব পড়তে পারেন ? পড়ে ফেলেছেন, আপনিও বিশ্বাস করেন না। তবে যে, যে লাইনে লেখা পরা করেছে। করতে চায়,সেই বিষয় অভস্যই ওয়াকিব হাল। আপনিতো সব বিষয় জ্ঞানদান করে চলেছে। হটাৎ ভাস্কর্য সম্পর্কে জ্ঞানদান করার উদ্দেশ্য কি ? আমি আপনার সব কথা মেনে নিলেও কি আপনি প্রচলিত সমাজ ব্যবস্থা থেকে ভাস্কর্যের পরিবর্তন আনতে পারবেন ? জাতির জনক কবরে কষ্ট পাওয়ার জন্য আপনার মনের বেকুলতা থেকেই ভাস্কর্য প্রতিরোধ করতে উঠে পরে লেগেছেন। আপনার পিতা কি অবস্থায় কবরে আছে, এই গ্রেরান্টি ও তথ্য আপনার কাছে আছে ? যদি বলেন আছে। আমি বলবো মিথ্যা বলেছেন। আল্লাপাক রাব্বুল আলামিন কবরের তথ্য দুনিয়াতে প্রকাশ করবেন না। তবে এ কথা আল্লাপাক পরিস্কার করে বলে দিয়েছেন। কাল কেয়ামতের দিন ৭২ কাতার থেকে এক কাতার আলেম বিনে হিসেবে জাহান্নামি হবেন। আল্লাপাক আঙ্গুল তুলে ইশারায় জাহান্নামে পাঠাবে। মামুনুল হক সেই কাতারের সন্দান করে ইসলামের পথে আনুন। না হয় আপনি সেই কাতারকে আলিঙ্গন করার অপেহ্মা ? আমি জানিনা। শাইকুল হাদিসের ওয়ারিশ দাবী না করে, জামাতের আমির হয়ে যান, পদ খালি আছে। হুমকি দিয়েন না। আপনার বাবা সাঈদী হুমকি দিয়েছিল, শেখ হাসিনার হুকুম না নিয়ে চাঁদে উঠেছিলো, মাসুল দিচ্ছে। মৃত্যুর পরে জান্নাত- জাহান্নাম আল্লাপাক ঠিক করবেন। তবে বাইচা থাকতে ইসলামের ভুল ব্যাহ্মা করতে দেওয়া হবে না। আপনি যত পারেন ফালান। বাংলার মানুষ আপনার এই ফালাফালি গ্রহন করবেনা। মনে রাখবেন দুনিয়ার সব মুসলমান কোরআন হাদিস, কিতাব সঠিক ভাবে পালন করলে মোল্লা, মসজিদ মাদ্রাসার প্রয়োজন হতো না, মিলাদ, দোয়া জানাযার জন্য মোল্লার দরকার হবে না। সব মত এক হয়ে গেলে রাজনীতির প্রয়োজন কি ? সব ফালানি শেষ,আপনিও শেষ হবেন, ইনশাআল্লাহ।

লেখকঃ বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী সমিতির মহাসচিব ও রাজধানী মোহাম্মদপুর থানার ৩৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামলী লীগের সভাপতি জনাব রবিউল আলম।

শেয়ার করুন

এই ধরনের আরও খবর...

Dairy and pen distribution

themesba-lates1749691102