June 17, 2024, 7:03 pm
শিরোনামঃ
ত্যাগের মহিমায় রাজধানীতে মহল্লায় মহল্লায় চলছে পশু কোরবানি রাজধানীতে মহল্লায় মহল্লায় চলছে পশু কোরবানি পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন অ্যাডভোকেট শেখ জামাল হোসেন মুন্না পবিত্র ঈদ-উল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন আলহাজ্ব মোঃ রেজাউল করিম সেন্টমার্টিন পরিদর্শনে পরিস্থিতি মোকাবিলায় তৎপর থাকার নির্দেশ:  বিজিবি মহাপরিচালক   ঝিনাইদহ-৪ আসনের সংসদ সদস্য আনারকে হত্যার আগে ২৫ বার বৈঠক করেন শাহীন বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির শুভ উদ্বোধন এবং পুরস্কার বিতরণ করলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ জাফর ইকবাল (বাবুল) পবিত্র ঈদ-উল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ সাইফ ইসলাম শুভ পবিত্র ঈদ-উল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন মোঃ ইব্রাহিম খান তুষার

পর্ব ৩৮ :- ”যে ইতিহাসটি বলা দরকার” : এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজা

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট সময় : Saturday, October 2, 2021
  • 403 Time View

এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজাঃ

২০০৮ সনের ডিসেম্বর মাসের সংসদ নির্বাচন এবং ২০০৯ সনের উপজেলা নির্বাচন নিয়ে বিগত পর্বগুলোতে অনেকটাই বলার চেষ্টা করছি। এবার আসবো ২০১৪ সনের সংসদ নির্বাচন নিয়ে। ২০০৯ সনের উপজিলা চেয়ারম্যান নির্বাচনে আ স ম ফিরোজ ফিরোজ ভাই বাউফলের আওয়ামী লীগের যে মুল ভিত্তি গড়েছেন, যে ১৯৭৯ সনে আ স ম ফিরোজ সাহেব বরাবরে নমিনেশন সেক্রিফাইস করেছিলেন, সেই আব্দুল আজিজ খন্দকার এর ছেলে , যাকে ফিরোজ ভাই উপজিলা নির্বাচনে হারিয়ে দিয়েছিলেন । যে কিনা আবার ১৯৯৬ সনে ঐ ফিরোজ ভাইয়ের কাছ থেকে লিখিত নমিনেশন সেক্রিফাইস পেয়েছিল অথচ দাবা খেলা না জানার কারনে ধরে রাখতে পারেনি। সেই খোন্দকার সামসুল হক রেজা আবার ২০১৪ সনে, আওয়ামী লীগের মনোনয়ন চাইবে, বা পাইবে, এটা ধারনা না থাকার কারনে, আমি নমিনশনের জন্য সেরকম কোন চেষ্টাই করিনি। কিন্ত ঐযে কিছু লোক আছে, প্রতিবার নির্বাচনের সময় ফিরোজ ভাইকে ঋণ খেলাপী বানায়, আর ফিরোজ ভাইকেও অনেক কষ্ট করতে হয়। কাঠ খোট্ঠা পোহাতে হয়। ঐ রিসেড্যুল বা অন্যকিছু। তাই নমিনেশন নিয়ে কোন দৌড়ঝাপ করিনি। ৫ জানুয়ারী নির্বাচনের তারিখ। আওয়ামী লীগের নমিনেশন ফাইনাল হয় সম্ভাবত ডিসেম্বর ‘ ২০১৩ এর প্রথম সপ্তাহে। ইতি মৈধ্যে ফিরোজ ভাইয়ের মনোনয়ন ঘোষন হয়ে গেছে। নমিনেশন ফাইলের তারিখে বি এন পি হরতাল ডেকেছে। আমি তখন মিরপুরে পল্লবির বাড়িতে থাকি। নমিনেশন ফাইলের আগের দিন রাত ৯টার দিকে, তখন ঢাকা শহরে কিছুটা আতঙ্কে। আমি কলাবাগান চেম্বার থেকে আমার বড় ভাইকে সহ একটি রিক্সায়,পল্লবির দিকে যাচ্ছি। মিরপুর টেকনিকাল পর্যন্ত পৌছার পর,আমার মোবাইল একটি ফোন আসে। ঐ ফোনে আমাকে বলা হলো, তুমি এখনই গনভবনে যাও। নেত্রী তোমার জন্য নিচে অপেক্ষা করছেন !। আমি ফোনের কন্ঠ বুঝতে পারলাম না। তারপরও রিক্সা থামিয়ে বড় ভাইকে ছেড়ে দিয়ে, তারাহুড়া করে একটি বেবিট্যাক্সি ঠিক করে গনভবনের দিকে রওয়ানা করি। গনভবনের কাছাকাছি পৌছলে আবার আমার মোবাইলে ফোন আসে। এবার বুঝতে পারলাম ফোনটা, আমির হোসেন আমু ভাইর। তিনি আবারও বললেন, রেজা তারাতারি গনভবনে যাও। আমির হোসেন আমু ভাই আমাকে কত ভালবাসেন। আমু ভাই আমাকে ফোনটা করেছিলেন ঝলিকাঠি থেকে। আমি তারাতারি গনভবনে ঢুকলাম। ঢুকেই দেখি, সেলিমা আপা সোফায় বসা । তিনি বললেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী আপনার জন্য অনেকক্ষণ অপেক্ষা করেছেন। আমি শুনে বুকটা ভরে গেল। তিনি বললেন তোমাকে পটুয়াখালীর বাউফলের আসনে নমিনেশন ফাইল করতে হবে। আ স ম ফিরোজের নমিনেশন ঋণ খেলাপীর কারনে বাতিল হয়ে যেতে পারে । এ কথা বলে আমার হাতে মাননীয় নেত্রীর স্বাক্ষর করা নমিনেশন সংক্রান্ত একটি পত্র দিলেন এবং বললেন নমিনেশন ফাইল করে তাকে কনফারম করতে বললেন। আমি মানিনীয় নেত্রীর নমিনেশন পেপার নিয়ে সাথে সাথে কৃষক লীগ নেতা এডভোকেট গাজী জসিম এবং নুরুন নবী ভোলাকে ফোন করলাম এবং তখনই একটি এম্বুলেঞ্চ ভাড়া করতে বললাম। কেননা রাত থেকে বি এন পির হরতাল। নিজস্ব গাড়িতে গেলে বিপদ হতে পারে। ভোলা একটি এম্বুলেঞ্চ ঠিক করলো। রাত ১১ টার দিকে ঢাকা থেকে আমরা ৩ জন রওয়ানা দিলাম পাটুরিযা ফেরী ঘাটের দিকে। এরই মইধ্যে কিছু কিছূ টেলিভিশনে খবর প্রচার হতে থাকে, পটুয়াখালী বাউফলে ঋণ খেলাপীর কারনে আ স ম ফিরোজ এর বদলে খোন্দকার সামসুল হক রেজাকে আওয়ামী লীগের মনোনয়ন দেয়া হয়েছে। এই শুরু হয়ে গেলো বাউফল থেকে শত শত ফোন। বাউফলের ২/৪ জন বাদের প্রায় সকেলে আমাকে অভিনন্দন জানাল। এমনকি ফিরোজ ভাইয়ের কিছু কাছের আত্তীয়ও আমাকে খুশিতে অভিনন্দন জানাল। এরই মইধ্যে ফিরোজ ভাই,আমাকে ফোন দিয়ে বললো, রেজা তোমাকেও আওয়ামী লীগের মনোনয়ন দিয়েছে তা আমি শুনেছি। তিনি চান আমিও যেন বাউফলে ইউ এন ও অফিসে একত্রে তার সাথে নমিনেশন ফাইল করি। আমি তাকে বললাম, আমার নমিনেশন পেপার রেডি করতে সময় লাগবে। আমি পটুয়াখালী পৌছে আপনার সাথে যোগাযোগে করবো। আমার ইনকাম ট্যাক্স সহ অন্যান্য কোন কাগজপত্রই রেডি ছিল না । পটুয়াখালীতে ছোট ভাইদের কাছে ফোন করে সব রেডি করতে বললাম এবং তত্কালীন পটুয়াখালী পৌর মেয়র ডাক্তার শফিক কে ফোন করে তার রেডি করা নমিনেশন ফর্মের এক সেট ফটোকপি পাঠাতে বললাম। তখন ফোনের পর ফোন। কতো ফোন রিসিব করবো। তখন আমার ফোন ২টি জসিম ও ভোলাকে দিলাম। তারাই আমার ফোন রিসিব করতে থাকল। এমন সময় আমাদের বাউফলের কৃষক লীগের একজন নেতা ফোন করে আমাকে জানায়, রেজা ভাই, আপনি পটুয়াখালী জেলায ডি সি অফিসে নমিনেশন ফাইল করেন। বাউফলে আসলে ফিরোজ সাহেবের লোকজন আপনাকে নমিনেশন ফাইল করতে দেবে না। বিষয়টি আমারও ফিরোজ ভাইয়ের ফোনের কারনে আগেই সন্দেহ হয়েছিল। যাহা হোক, আমি পটুয়াখালীতেই নমিনেশন ফাইল করার সিদ্ধান্ত নিলাম এবং কাগজপত্র রেডি করে, পরদিন বিকেল ৪ টার দিকে নমিনেশন পেপার ফাইল করি এবং ঢাকায় সেলিমা আপাকে জানিয়ে দেই।
এরপর আসে সেই নমিনেশন স্ক্রুটিনাইজ পর্ব। পটুয়াখালী জেলা নির্বাচন অফিসার তখন পটুয়াখালী জেলা প্রশাসক অমিতাভ সরকার । সজ্জন ব্যক্তি। নিদ্দিষ্ট দিনে নিদ্দিষ্ট সময় পটুয়াখালী দরবার হলে বসে সেই নমিনেশন বাছাই পর্ব। পটুয়াখালী জেলার অন্যান্য আসনে কোন সিরিয়াস অভিযোগ না ওঠলেও বাউফল আসন নিয়ে সরব হন, বাউফল উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সহ সভাপতি এডভোকেট আবুল কাশেম সাহেব। তিনি ঐ বাছাই সভায় বললেন, ফিরোজ সাহেব ঋণ খেলাপি। একজন ঋণ গ্রহীতা সর্বোচ্চ ৩ বার ঋণ রিসেডুল করতে পারেন, কিন্তু উনি করেছেন ১০ বার । তাছাড়া নমিনেশন ফাইলের ৭ দিন পূর্বে রিশেডুলের টাকা জমা দেয়ার বিধান থাকলেও তিনি জমা দিয়েছেন ৩ দিন পূর্বে এবং যে পরিমাণ টাকা জমা দেয়ার কথা, তার চেয়ে কম জমা দিয়েছেন।তাছাড়া ফিরোজ সাহেবের জুটমিল প্রায় ২০ বছরের বেশী বন্ধ, তাই তিনি রিসেডুল করতে পারেন না। তাই তার নমিনেশন পেপার বাতিল হবে। জেলা রিটার্নিং অফিসার, জেলা প্রশাসক মহোদয় ঐ সকল বক্তব্য শুনে কোন সিদ্ধান্ত না দিয়ে বাছাইপর্ব ১ ঘণ্টার জন্য মুলতবি করলেন। আমরা ধারনাই করতে পারলাম না কি হচ্ছে ! । ১ ঘণ্টা পর জেলা প্রশাসক মহোদয় দরবার হলে এসে, ফিরোজ সাহেবের মনোনয়ন বৈধ ঘোষনা করে বাছাই সভা শেষ করে দিলেন। ফলে আওয়ামী লীগের বিকল্প প্রার্থী হিসেবে আমার মনোনয়ন আর থাকে না। কেননা ফিরোজ সাহেবকেই পরে নৌকার প্রতীক বরদ্ধ করা হয়।
আসলে এখন সবকিছুই যেন এরকম হয়ে যাচ্ছে। না বুঝতে পারছি, না বিশ্বাস করতে পারছি। (ক্রমশঃ) এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজা, সাবেক সাধারণ সম্পাদক, বাংলাদেশ কৃষক লীগ। ১৭ অগাস্ট, ২০২০।

শেয়ার করুন
More News Of This Category

Dairy and pen distribution

ডিজাইনঃ নাগরিক আইটি ডটকম
themesba-lates1749691102