July 17, 2024, 8:05 pm
শিরোনামঃ
অহেতুক কতগুলো মূল্যবান জীবন ঝরে গেল : প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ফুফুর বাড়ি বেড়াতে এসে নদীতে ডুবে সিয়াম নামে এক যুবকের মৃত্যু গায়েবানা জানাজার পরই পল্টনে পুলিশের সঙ্গে বিএনপি-সমমনা দলের ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া, ইটপাটকেল নিক্ষেপ সন্ধ্যায় জাতির উদ্দেশে ভাষণ দেবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এক দল রাজনৈতিক উদ্দেশ্যে কোটা আন্দোলনকে ব্যবহার করছে: ডিবিপ্রধান হারুন-অর-রশিদ ছারছীনা দরবার শরীফের পীর সাহেবের ইন্তেকাল পবিত্র আশুরা সমগ্র মুসলিম উম্মা’র জন্য এক তাৎপর্যময় ও শোকের দিনঃ: মোঃ সাদেক খান রাজবাড়ীর পাংশায় সাংবাদকর্মীদের সঙ্গে মত বিনিময় সভা করলেন নবাগত উপজেলা স্বাস্থ্য কর্মকর্তা শেখ হাসিনাকে গ্রেপ্তার করে গণতন্ত্রকেই বন্দী করা হয়েছিলঃ মোঃ সাদেক খান কোটা প্রথা বা পদ্ধতি বিশ্বে নতুন নাঃ আঃ রহমান শাহ্

পর্ব ১০১: “যে ইতিহাসটি বলা দরকার” : এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজা

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট সময় : Thursday, July 11, 2024
  • 31 Time View

এডভোকেট খোন্দকার সামসুল হক রেজাঃ আমার লেখালেখির অভ্যাস কখনো ছিলনা। শুধু করোনা কালীন সময়ে লেখক বনে যাওয়া। তাও ইংরেজি ফন্টে বাংলা লেখা এবং ভুল থেকেই যায়। ইদানিং সবাই ফেসবুক কেন্দ্রীক। জাতীয় রাজনীতি, শিক্ষানিতী, নির্বাচন, নির্বাচন কালীন ব্যাবস্থা নিয়ে বিভিন্ন জন বিভিন্ন মতমত দিচ্ছেন। কেউ সর্বজনগ্রাহ্য কোনো তত্ত্ব দিচ্ছেন না। অনেকদি পূর্বে আমাদের পটুয়াখালীর এক মুরুব্বির সাথে কথা প্রসঙ্গে, বলেছিলাম একসময় পটুয়াখালী শহরে পৌরসভার রাস্তায় মোরে মোরে পোস্ট এ, সন্ধায় হেরিকেন জালিয়ে রাখা হতো এবং ভোরে পৌরসভার লোকজন নিয়ে যেত। ভদ্রলোক খুবই ক্ষেপে বল্লেন, কি উল্টাপাল্টা বলছো । আমি বললাম, ভাই আপনি পটুয়াখালীতে প্রথন কবে এসেছেন। তিনি বললেন সেই ১৯৬৭ সনে। তখন আমি বললাম ভাই আমি ৬২ সনের কথা বলছিলাম। তখন ঐ বড় ভাই আর কথা বলেননি। প্রশাঙ্গিক আরেকটি কথা বলছি। আমার কাছের মানুষ, আমি যে সংগঠন করতাম, সেই সংগঠনে তিনি একটি দায়ীত্বপুর্ণ পদে ছিলেন। বয়সও আমার চেয়ে বেশী। তার একটি কাজের ব্যাপারে বার বার ধর্না দিচ্ছিলেন ঐ সংগঠনের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক এর নিকট। আমাকেও বলতেন মাঝে মাঝে। একদিন আমদের সভাপতির অফিস রুমে বসে, উনি তাকে তার সাথে এক দায়ীত্ত্বপুর্ণ ব্যক্তির নিকট যাওয়ার অনুরোধ করেন কিন্ত সভাপতি মহোদয় যেতে চাচ্ছেন না।তখন আমি বললাম, আপনি ব্যবসায়ী মানুষ, এখনে না ঘুরে সরাসরি আপনি যোগযোগ করে, প্রয়োজনে টাকা পয়সা খরচ করেন। কথাগুলোতে ঐ ভদ্রলোক খেপে গেলেন !। তখন আমাকে বলে বসলেন,” আপনার বয়সের চেয়ে, আমার রাজ্নীতির বয়স বেশী “। বিষয়টি আমি সিরিয়াস না হয়ে হাসতে হাসতে বললাম,আপনি কবে থেকে রাজ্নীতি শুরু করেছেন। তিনি বললেন সেই ৬৮/৬৯ থেকে। তখন আমি বললাম, ভাই আমি একটু আগে শুরু করেছি। ৬৬ সনের ফতেমা জিন্নাহর প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে, বরিশালের অশ্বিনীকুমার টাউন হলের সভায়, আমি তার মঞ্চে ছিলাম !। এরপর তিনি আর কোনো কথা বলেননি। কথা গুলো এজন্য আনলাম, আমরা আসলে নিজেকেই সবাই প্রধান্য দেই, কি রাজ্নীতীতে, কি ব্যক্তিগত ক্ষমতা নিয়ে।আসলে কেউ এখন আর দেখার নেই। আপনি কে, কি আপনার পরিচয়,কি আপনার রাজনৈতিক অবস্থান এখন আর কেউ খুজ্তে যায় না। আপনি এখন কি করছেন, সেটাই আপনার আদর্শ, আপনি নিবেদিতো প্রাণ। এভাবেই চলছে আমাদের সমাজ, আমাদের রাজ্নীতি। বিপরীতে হারিয়ে যাচ্ছেন অনেক নিবেদিত ও আদর্শীক নেতা কর্মী, সমাজ ও রাজ্নীতি থেকে।একজন প্রখ্যাত নাট্যকার “রুচির দুর্ভিক্ষ” বলতে এটাকেই বুঝতে চেয়েছিন কিনা, সেটা তিনি ভালো বলতে পারবেন। আসলে আমরা সকলে যেন ক্যামন হয়ে গেছি। বিশেষ করে রাজ্নীতীতে। অথচ রাষ্ট, সমাজের জন্য একটি ভালো রাজ্নীতি অবধারিত বিষয়। জাতিরপিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সেই বাংলাদেশই প্রতিষ্টা করেছেন, সেই সমাজ বিনির্মাণের জন্যই ” দ্বিতীয় বিপ্লবের” কর্মসূচী ঘোষণা করেছিলেন। কিন্তু দেশীয় ও আন্তর্জাতিক ষড়যন্ত্রকারীদের কারনে, তা পারলেন না। আজ সেই শক্তিই ধীরে ধীরে আমাদের রাষ্ট্র ও সমাজকে ধ্বংসের পাঁয়তারা করছে। আমাদের কালের শ্রেষ্ট কৃষকদরদী, জননেত্রী শেখ হাসিনা, বঙ্গ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর সেই প্রদর্শিত পথেই এগুচ্ছেন। অথচ সেই সময়, কেউ কেউ বিভিন্ন ধরনের কথা বলছেন দলে এবং দলের বাহিরে। ক্রমশঃ এডভোকেট খোন্দকার শামসুল হক রেজা, সাবেক সাধারন সম্পাদক, বাংলাদেশ কৃষক লীগ। ১০ জুলাই’ ২০২৩।

শেয়ার করুন
More News Of This Category

Dairy and pen distribution

ডিজাইনঃ নাগরিক আইটি ডটকম
themesba-lates1749691102