বুধবার, ২৮ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০১:৫৬ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
নারী নেতৃত্ব বিশ্বকে উজ্জ্বল করেছে, ইডেন করেছে কলংকৃত প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৬তম জন্মদিনে নুরে আলম সিদ্দিকী হক শুভেচ্ছা রাজধানী মোহাম্মদপুর থানার ৩৩ নং ওয়ার্ড কৃষক লীগের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত নদ-নদী রক্ষায় পানি লুন্ঠন ঠেকাতে হবে : বাংলাদেশ ন্যাপ লালমাটিয়া হাউজিং সোসাইটি স্কুল এন্ড কলেজের গভর্নিং বডির সভাপতি সৈয়দ হাসান নূর ইসলাম রাষ্টন ঝিনাইদহে সাপের কামড়ে প্রধান শিক্ষকের মৃত্যু মহা মায়া দুর্গার আগমন উপলক্ষে মন্দিরে মন্দিরে হিন্দু সম্প্রদায়ের মহা প্রস্তুতি বিএনপি কতকাল আওয়ামী লীগের খেলার পুতুল হবে? রাজনীতির জন্য নিজস্ব কিছু অর্জন থাকতে হবে  ক্রিড়াঙ্গনের নিলজ্জ্বতা আবার দেখতে হলো বাঙালি জাতিকে ব্যাক্তিত্ব ছাড়া নেতৃত্ব, জনসমর্থন ছাড়া কোনো জান্তাই ইচ্ছেতন্ত্র চালাতে পারবে না মিয়ানমার

কালীগঞ্জে কৃষি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে কৃষকের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

রিপোর্টারের নাম:
  • আপডেট টাইম বৃহস্পতিবার, ২৮ জুলাই, ২০২২
  • ২৬ দেখা হয়েছে

কালীগঞ্জ (ঝিনাইদহ) প্রতিনিধিঃ

ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তার বিরুদ্ধে রাজস্ব বাজেটের আওতায় রবি,খরিপ-১ ও খরিপ-২ মৌসুমের প্রকল্পে আন্তঃ পরিচর্যা বাবদ রাজস্ব খাতের কৃষকের টাকা আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে। প্রান্তিক কৃষকের ধান, সরিষা ও ভুট্রা পরিচর্যা বাবদ ১৫শত টাকা দেওয়ার কথা থাকলেও কৃষকের মাঝে ১৪শত টাকা বিতরনের তথ্য মেলে। কালীগঞ্জ নিমতলা মসজিদ সংলগ্ন মোবাইল ব্যাংকিং সেবাদানকারী একটি দোকান থেকে কৃষি অফিস থেকে আনা টোকেন জমা দিয়ে নগদ অথবা বিকাশ এর মাধ্যমে ১৪শত টাকা বিতরণ করা হয়েছে। ২০২১-২২ অর্থ বছরে মোট ৩শত ৩৩ জন কৃষক এই সুবিধার আওতায় আসলেও ২৪৩ জন কৃষকের মাঝে ১শত টাকা কম দেওয়ার অভিযোগ তুলেছে কৃষকরা। এই প্রকল্প থেকে ২৪৩ জন কৃষকের কাছ থেকে ২৪ হাজার ৬শত টাকা আত্মসাৎ করা হয়েছে।

সরজমিনে উপজেলার নিয়ামতপুর, রাখালগাছি ইউনিয়নের যথাক্রমে কৃষক রকিব, মোমিনুর, নুরুল মালিতা, রতনঘোষ, হামিদ, চানদালী ও সমির খাঁর সাথে কথা হলে তারা জানান, আমরা বিকাশের মাধ্যমে ১৪শত টাকা পেয়েছি খরচ খরচা বাদে ১৩শত ৭০ টাকা পেয়েছি অথচ আমাদের ১৫শত টাকা পাওয়ার কথা ছিল শুনেছি।

এ বিষয়ে কালীগঞ্জ উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা শিকদার মোঃ মোহায়মেন আক্তার জানান,২৪হাজার ৬শত টাকা অতিরিক্ত আছে। অডিট খরচসহ আনুসঙ্গিক ব্যয় তো থাকেই যে কারনে এমনটি করেছি। সবাইকে ১শত টাকা করে ফেরত দিব বিষয়টি ম্যানেজ করেন। ঝিনাইদহ জেলা কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক মোঃ আজগর আলী বলেন, কৃষকের টাকা আত্মসাতের ঘটনা ঘটে থাকলে দুঃখজনক। ঘটনার সত্যতা থাকলে তদন্ত কমিটি গঠন করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহন করব। যশোর কৃষি সম্প্রসারন অধিদপ্তরের অতিরিক্ত পরিচালক ড. মোঃ একলাছ উদ্দীন বলেন,এমন ঘটনা ঘটলে তা খতিয়ে দেখা হবে। এই ধরনের কাজের সাথে জড়িত ব্যক্তিদের কোন ছাড় দেওয়া হবে না।

কৃষি প্রধান দেশে কৃষকের টাকা আত্মসাৎ কোন ভাবেই সাধরন মানুষ মেনে নিতে পারেনি। তদন্ত পূর্বক দোষী ব্যক্তিদের শাস্তির দাবি জানিয়েছে প্রান্তিক কৃষকেরা।

শেয়ার করুন

এই ধরনের আরও খবর...

Dairy and pen distribution

themesba-lates1749691102