April 14, 2024, 5:33 am
শিরোনামঃ
বাংলা ও বাঙ্গালীর নববর্ষঃ আঃ রহমান শাহ ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানালেন কৃষক লীগ নেতা মোঃ হালিম খান পদ্মা সেতুতে একদিনে সর্বোচ্চ টোল আদায়ের রেকর্ড জাহাজেই ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় করলেন জিম্মি নাবিকরা পবিত্র ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানিয়েছে আলহাজ্ব লায়ন মোঃ দেলোয়ার হোসেন বাংলাদেশের আকাশে শাওয়াল মাসের চাঁদ দেখা গেছে, কাল ঈদ সবার সঙ্গে ঈদের আনন্দ ভাগাভাগি করুন :প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঈদুল ফিতরের শুভেচ্ছা জানালেন মোঃ বশির আহম্মেদ রাজবাড়ীর কালুখালীতে বকেয়া বেতন ভাতার দাবিতে কারখানায় শ্রমিকদের বিক্ষোভ রাজধানী মোহাম্মদপুর মোঃ রুস্তুম আলীর আয়োজনে ইফতার ও দোয়া মাহফিল অনুষ্ঠিত

এর নাম গনতন্ত্র হলে,জনগণের ভোটের প্রয়োজনীয়তা কোথায় ?

রিপোর্টারের নাম
  • আপডেট সময় : Friday, July 21, 2023
  • 51 Time View

সরকার স্বচ্ছ নির্বাচনের আশ্বাস দিয়েছে, পিটার হাস। আমেরিকার সাথে ভুল বুজা বুজি হয়েছিলো, পররাষ্ট্র মন্ত্রী আব্দুল মমেন। সেইতো রং মাখালি, তবে কেনো লোক হাঁসালি ? শেখ হাসিনা ছাড়া বাংলাদেশ এখন বাঙালি ভাবতে পারে না। বিশ্ব হাসিনা মুক্ত চিন্তা করতে পারে না। আমেরিকার ব্যবসায়ীরা মাইকা চিপায়, তৈরি পোশাক খাতে মিলিয়ন, বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করে। তারেক রহমানের বিরুদ্ধে বানিকার্টের রিপোর্টের অংশ বিশেষ বিশ্লেষণ করলে, ব্যবসায়ীদের উপায় অন্ত থাকে না। বাংলাদেশে আমেরিকার বিনিয়োগের নিরাপত্তা খুঁজে পাবেন না। বাইডেনের কথাই শেষ কথা হতে পারে না। আমেরিকার জনগন মনেও করে না, একাত্তরে ও মনে করে নাই। বিএনপির এক দফার রফা করে দিয়েছে, বাংলার জনগণ। ইউরোপীয় ইউনিয়নের প্রতিনিধিরা যা দেখতে চেয়ে ছিলো ? উত্তর তারা পেয়েছে।বাংলাদেশের অস্তিত্ব না থাকলে, ইউরোপ আমেরিকার স্বার্থ আদায় হবে কোত্থেকে ? ঘুরে ফিরে গনতন্ত্র, মানবাধিকার একি সুত্রে। আসল কথা হয় গোপনে।

কি দিয়েছে আওয়ামীলীগ,কি দিতে পারেনি বিএনপি ? এক কথায় বলতে হবে, নেতৃত্ব । ব্যাক্তিত্বহীন নেতৃত্ব দিয়ে পৃথিবীর কোনো জাতি আত্ন মর্যাদা রক্ষা করতে পারেনি। পারে না বিশ্বের কোনো দেশের স্বার্থ রক্ষা করতে। যারা নিজের ও দলের অস্তিত্ব রক্ষা করতে পারে না, তাদের কাছে দেশ রক্ষার দায়ীত্ব দেওয়া যায় না।

আমেরিকার ও ইউরোপের বুঝতে অনেকটা দেরি হয়ে গেছে। বাইডেনের প্রতিহিংসা, লবিস্টদের পরোচনায় বাঙালির মনে যেই আগুনের সুচনা হয়ে ছিলো, বিশ্ব সেই আগুনের লেলিহান থেকে মুক্ত হতে পারতো না। শুভ বুদ্ধি উদয় হলে ভালো,না হয় লাউ আর কদুর গল্প সবারই জানা। আলহাজ্ব মোঃ সাদেক খান এমপি, বাতাশে গন্ধ শুখে, ব্যাক্তির মুখ দেখে, অতিরিক্ত চামচামি থেকে বলতে পারেন, কে প্রকৃত দল প্রেমিক। কিন্তু বলেন না রাজনীতির জন্য। পাগল, ছাগল আর ডক্টরেটের ভোট একটাই।গনতন্ত্র রক্ষা ও বাস্তবায়নের জন্য। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পশ্চিমাদের রগ কয়টা ? গননা করে নিয়েছেন,রোহিঙ্গা ইস্যুতে অনেক দেশ চামচামি করেছেন,প্রকৃত সমস্যা সমাধান করতে হবে আমাদেরকে। ব্যবসা করতে আইছেন, করেন, আমাদের দেশ নিয়ে কথা বলার অধিকার আপনাদের কে দেওয়া হয় নাই। গোপন বিষয়,গোপনই রাখতে হবে। গোপন আলোচনায় গনতন্ত্র ও মানবাধিকার, জনগণের ভোটের গনতন্ত্র কোথায় ? পাকিস্তান, আফগানিস্তানের গনতন্ত্রের ঠিকাদারির দায়ীত্ব কে নিবেন ? নির্বাচনের আশ্বাসে, বাতাশের গতি বুঁজে রাজনীতি করতে হবে। পশ্চিমাদের শিখানোর জন্য,শেখ হাসিনা আছে। বাঙালি অধিকার আদায় করতে জানে, বন্দুকের নলের গনতন্ত্র মানে না।

লেখকঃ বাংলাদেশ মাংস ব্যবসায়ী সমিতির মহাসচিব, রাজধানী মোহাম্মদপুর থানার ৩৪ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের চলতি দায়িত্ব প্রাপ্ত সভাপতি ও  খাস খবর বাংলাদেশ পত্রিকার সম্মানিত উপদেষ্টা মন্ডলী জনাব রবিউল আলম।

শেয়ার করুন
More News Of This Category

Dairy and pen distribution

ডিজাইনঃ নাগরিক আইটি ডটকম
themesba-lates1749691102